২৫শে মে, ২০২০ ইং | ১১ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | সকাল ৬:২৬

সেই অমিত সাহা আটক

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট) শাখা ছাত্রলীগের আইনবিষয়ক সম্পাদক অমিত সাহাকে আটক করেছে পুলিশ। আবরার ফাহাদ হত্যাকাণ্ডের পর আত্মগোপনে থাকা অমিত সাহাকে ঢাকার সবুজবাগ এলাকা থেকে আটক করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ।

বৃহস্পতিবার সকালে ১১টার দিকে তাকে আটক করা হয়। ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের যুগ্ম কমিশনার মাহবুব আলম ঢাকা টাইমসে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

মাহবুব আলম বলেন, সকাল ১১টার দিকে সবুজবাগ এলাকা থেকে অমিত সাহাকে আটক করা হয়েছে। তবে এখন তাকে কোথায় নেওয়া হচ্ছে সে বিষয়ে তিনি কিছুই জানাননি।  সংবাদ সম্মেলন করে তার ব্যাপারে বিস্তারিত জানানো হবে বলে জানান তিনি।

গত গভীর রাতে বুয়েটের শেরে বাংলা হলের সিঁড়ি থেকে উদ্ধার করা হয় বুয়েটের তড়িৎ কৌশল বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র আবরারের লাশ।

ভারতের সঙ্গে সাম্প্রতিক কয়েকটি চুক্তি নিয়ে ফেসবুকে মন্তব্যের সূত্র ধরে শিবির সন্দেহে আবরারকে ডেকে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদের এক পর্যায়ে বুয়েট ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা তাকে পিটিয়ে হত্যা করে বলে হলের শিক্ষার্থীরা অভিযোগ করেন।

এই হত্যাকাণ্ডের প্রতিবাদে মঙ্গলবার থেকে আন্দোলন করে আসছেন বুয়েটের শিক্ষার্থীরা।

হত্যার ঘটনায় আবরারের বাবা কুষ্টিয়াবাসী অবসরপ্রাপ্ত ব্র্যাককর্মী বরকতুল্লাহ মোট ১৯ জনকে আসামি করে চকবাজার থানায় একটি মামলা করেছেন। ওই মামলায় মঙ্গলবার পর্যন্ত মোট ১৩ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

তবে যে কক্ষে আবরারকে হত্যা করা হয় সেখানে থাকতেন বুয়েট শাখা ছাত্রলীগের আইনবিষয়ক সম্পাদক অমিত সাহা। হত্যার সঙ্গে তার সম্পৃক্ততার অভিযোগ থাকলেও মামলায় অমিতকে আসামি না করায় বুয়েটসহ সারাদেশে এ নিয়ে শুরু হয় নানা সমালোচনা।

ভিডিও ফুটেজ দেখে যাদের শনাক্ত করা হয়েছে, কেবল তাদের নামেই মামলা হয়েছে বলে পুলিশের পক্ষ থেকে বলা হলেও শিক্ষার্থীদের দাবি অমিতের উপস্থিতিতে আবরারকে হত্যা করা হয়েছে।

হত্যার ঘটনায় ক্যাম্পাস যখন উত্তাল তখন আত্মগোপনে চলে যান অমিত সাহা। এ নিয়ে সমালোচনার মধ্যেই অমিতকে আটকের কথা জানায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

প্রকাশ :অক্টোবর ১০, ২০১৯ ১:১৮ অপরাহ্ণ